ব্রেকআউট

আরাফ হাসান:  ফরেক্স ট্রেড করেন, আর ব্রেকআউট শব্দটি জানেননা, বিশ্বাস করতে পারলাম না। সবাই কোথাও না কোথাও অবশ্যই এই শব্দটি শুনেছেন, এবং এই শব্দটির সাথে সবাই পরিচিত।

ব্রেকআপ শব্দটি আমরা সবাই জানি। ব্রেকআপ মানে ভেঙ্গে যাওয়া। যেমন আপনি নিশ্চয়ই শুনেছেনঃ

আজকে ওর সাথে ব্রেকআপ করে ফেলেছি :((

কান্নাকাটির দরকার নেই। ব্রেকআপ নয়, ফরেক্সে ব্রেকআউট মানে ভেঙ্গে বের হয়ে যাওয়া। কিন্তু কি ভেঙ্গে বের হয়ে যাওয়া? সেটা সম্পর্কেই লিখছি।

উপরের ছবিতে কি দেখছেন? প্রাইস একটি চ্যানেলের মাঝে আটকে গেছে। শত চেষ্টা করেও ওপরে-নিচে ধাক্কা দিয়ে কোনভাবেই সে বেরোতে পারছে না। আপনার যদি এমন হত তাহলে কি করতেন? ভাবতেন যদি একবার বের হতে পারতাম, ময়না দ্বীপে পালিয়ে যেতাম।

সাপোর্ট-রেসিসট্যান্স সম্পর্কে নিশ্চয়ই সবার ধারনা আছে। না থাকলেও এখানে আর্টিকেল আছে। পড়ে নিলেই জানতে পারবেন। প্রাইস ওপরে কয়েকবার যেতে গিয়ে বাধা পেয়ে নিচে ফিরে এসেছে। আবার নিচে বাধা পেয়ে আবার ওপরে যাওয়ার চেস্টা করেছে। আর এই টপ এবং বটম পয়েন্ট গুলোই ওপরে রেসিসট্যান্স তৈরি করেছে এবং নিচে সাপোর্ট লেভেল তৈরি করেছে। তাই এইরকম সময়, ট্রেডাররা অপেক্ষা করে যে, কখন প্রাইস ওপরে বা নিচে একটি লেভেল ব্রেক করবে। আর যখনই প্রাইস একবার এই লেভেল ব্রেক করে, মোটামুটি নিশ্চিত বড়-সড় একটা মুভমেন্ট সে মার্কেটে ঘটিয়ে দিবে।
breakout

অবশেষে ব্রেকআউট হল। খুব বেশি খুশি হয়ে যাওয়ার কারন নেই যে এরকম লাইনের ব্রেক দেখলেই বাই বা সেল দিয়ে বসবেন। ফেক ব্রেকআউটও হয়। আপনি ব্রেকআউট ভেবে ট্রেড দিয়ে বসলেন। কিন্তু হায়! সেটা ব্রেকআউট ছিল না। তা ছিল ফেক ব্রেকআউট, বা ফেকি। সহজ বাংলায় ফেকআউট। (আউট তো বাংলা নয় :idea: )

অবশ্যই আমাদের জানতে হবে কিভাবে ফেক ব্রেকআউট বা ফেকআউট চিহ্নিত করতে হয়, কিভাবে ব্রেকআউট চিনতে হয়, এবং কখন ট্রেড ওপেন করতে হয় এবং নিরাপদে ক্লোজ করতে হয়। অবশ্যই জেনে রাখুন ১০০% সময় আমরা প্রফিট করতে পারব না। কিন্তু যেখানে জেতার সুযোগ বেশি, সেখানেই আমরা।

ব্রেকআউট কয় ধরনের হয়?

ব্রেকআউট মূলত ২ ধরনের হয়। যথা –

  • Continuation Breakout (কন্টিনিউেশন ব্রেকআউট)
  • Reversal Breakout (রিভারসাল ব্রেকআউট)

আর ফেকআউট তো আছেই। কিন্তু সেটা যেহুতু ব্রেকআউটের মধ্যেই পরে না, তাই ফেকআউট রাজাকার। ফেকআউটের বিচার করতে হবে। তবে সেটা পরে। আগে এই ২ ধরনের ব্রেকআউট সম্পর্কে জেনে নেয়া যাক।

Continuation Breakout(কন্টিনিউেশন ব্রেকআউট):

হঠাৎ করে মার্কেট একটি বড় মুভমেন্টের পর কিছুটা ঝিমিয়ে পরে। যেন অনেক পরিশ্রমের পর জিরিয়ে নিচ্ছে বা বিশ্রাম নিচ্ছে। যেমন দীর্ঘ ম্যারাথন দৌড়ের পর দৌড়বীদরা বিশ্রাম নেয়। তখন মার্কেটে সাইডওয়ে মুভমেন্ট দেখা যায়। প্রাইস একটা চ্যানেলের মধ্যে আটকিয়ে শুধু ঘুরছে তো ঘুরছেই। তখন আসলে ট্রেডাররা সিদ্ধান্ত নেয়, এখন তাদের কি করা উচিত? বাই না সেল? এই অবস্থাকে কনসলিডেশন (Consolidation) বলা হয়।

কন্টিনিউেশন ব্রেকআউট
এখন যদি ট্রেডাররা সিদ্ধান্ত নেয় যে তাদের আগের সেল করার সিদ্ধান্তই ঠিক ছিল, তাহলে দেখা যাবে তারা আবার সেল করে মার্কেটকে আরও নিচে নিয়ে যাবে এবং সাপোর্ট লেভেল ভেঙ্গে ব্রেকআউট ঘটবে।
ব্রেকআউট

Reversal Breakout (রিভারসাল ব্রেকআউট):

কনসলিডেশনের (Consolidation) পর ট্রেডাররা যদি মনে করে যে প্রথমে তারা যে ট্রেডের সিদ্ধান্ত নিয়েছিল, তা ভুল ছিল, তবে তারা বিপরীত দিকে ট্রেড দেয়া শুরু করে।

  রিভারসাল ব্রেকআউট

 কনসলিডেশনের সময় ট্রেডাররা মনে করলো যে তাদের সেল করার সিদ্ধান্ত ভুল ছিল। তাই তারা আবার উল্টো বাই ট্রেড দেয়। ফলে প্রাইস রেসিসট্যান্স লেভেল ভেঙ্গে ব্রেকআউট করে। একে রিভারসাল ব্রেকআউট বলে।

ব্রেকআউট আমরা কোথায় দেখি?

মুভিং এভারেজ আমাদের প্রিয় ইন্ডিকেটর। মুভিং এভারেজের লাইন ক্রস করে ক্যানডেল ওঠা-নামা করে। সেটাও ১ প্রকার ব্রেকআউট। বলিঙ্গার ব্যান্ডের লাইন ব্রেক করাও কিন্তু ব্রেকআউট। অনেক ট্রেডাররাই বলিঙ্গার ব্যান্ড ব্রেকআউট ট্রেড করে থাকেন। চার্টে আঁকা ট্রেন্ড লাইন, চ্যানেল, প্যাটার্ন, সাপোর্ট-রেসিসট্যান্স সবকিছুর ব্রেকই কিন্তু ব্রেকআউট। এবং আমরা অনেকেই অজান্তে ব্রেকআউট ট্রেড করে থাকি না জেনেই। তাই যদি ফেকআউট গুলো নির্ণয় করা সম্ভব হয়, প্রফিট করাটাও অনেকটা সহজ হয়ে যাবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here